শনিবার, ৩০ ডিসে ২০১৭ ০৮:১২ ঘণ্টা

মোহনগঞ্জ পাইলট বিদ্যালয়ের পুনর্মিলনী সম্পন্ন

Share Button

মোহনগঞ্জ পাইলট বিদ্যালয়ের পুনর্মিলনী সম্পন্ন

মোহনগঞ্জ প্রতিনিধি,সিলেট রিপোর্ট: নতুন প্রজন্মকে আধুনিক উন্নত বাংলাদেশের নির্মাতা হিসেবে গড়ে তোলা হবে বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ। শুক্রবার (২৯ ডিসেম্বর) দুপুরে নেত্রকোনার মোহনগঞ্জ পাইলট সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রাক্তন শিক্ষার্থীদের পুনর্মিলনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য তিনি এ কথা বলেন।

বক্তব্য রাখছেন শিক্ষামন্ত্রীশিক্ষামন্ত্রী বলেন, ‘দেশের শিক্ষার্থীদের শিক্ষার মূল লক্ষ্য নির্ধারণ করা হয়েছে উন্নত বাংলাদেশের নির্মাতা হিসেবে গড়ে তোলা। যাতে করে তারা বিশ্বমানের শিক্ষা, জ্ঞান ও বিশ্বমানের প্রযুক্তি শিখতে পারে।’নেত্রকোনার শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলো সংস্কারের জন্য সরকার চলতি অর্থবছরে ১৩৫ কোটি ৮৭ লাখ টাকা বরাদ্দ দিয়েছে বলেও জানান মন্ত্রী। এর আগে, তিনি বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের সঙ্গে কথা বলেন ও জাতীয় পতাকা উত্তোলন করে অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করেন। পরে সকাল ৯টায় অনুষ্ঠানের উদ্বোধনী পর্বে পুনর্মিলনী কেন্দ্রীয় উদযাপন কমিটি ও প্রধানমন্ত্রীর একান্ত সচিব সাজ্জাদুল হাসানের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগের বিচারপতি ওবায়দুল হাসান, স্থানীয় সংসদ সদস্য রেবেকা মমিন, বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. ফয়জুর রহমান চৌধুরী, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজি বিভাগের অধ্যাপক ড. সৈয়দ মনজুরুল ইসলাম, ময়মনসিংহ বিভাগীয় কমিশনার জি এম সালেহ উদ্দিন, ময়মনসিংহ রেঞ্জের ডিআইজি নিবাস চন্দ্র মাঝি, নেত্রকোনা জেলা প্রশাসক ড. মুশফিকুর রহমান, পুলিশ সুপার জয়দেব চৌধুরী, মোহনগঞ্জ পৌর মেয়র লতিফুর রহমান রতন, পুনর্মিলনী কেন্দ্রীয় উদযাপন কমিটির যুগ্ম আহ্বায়ক উপজেলা চেয়ারম্যান আ খ ম শফিকুল হক, যুগ্ম আহ্বায়ক মো. শহীদ ইকবাল, কামাল পাশা চৌধুরী, প্রলয় কুমার জোয়ারদার, ইউএনও মো. মেহেদী মামুদ আকন্দ প্রমুখ।

সাজ্জাদুল হাসান বলেন, ‘অনুষ্ঠান প্রাক্তন শিক্ষার্থীদের মিলনমেলায় পরিণত হয়েছে। ফলে সকলে মিলে এলাকার উন্নয়নে এগিয়ে আসতে পারবো। ’বর্ণিল আয়োজনে অত্যন্ত আনন্দঘন পরিবেশে অনুষ্ঠিত এ মিলন মেলায় বিদ্যালয়ের প্রায় ৫ হাজার নবীন ও প্রবীণ শিক্ষার্থীসহ জেলার গণ্যমান্য ব্যক্তিদের অংশগ্রহণে বিদ্যালয়ের মাঠটি কানায়-কানায় ভরে ওঠে। দিনব্যাপী অনুষ্ঠান শেষে এক সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। সন্ধ্যায় অনুষ্ঠানে সাবিনা ইয়াসমিন, সুবীর নন্দী, ঝিলিক, আশিকসহ স্থানীয় শিল্পীরা সংগীত পরিবেশন করেন।
আত্মকথা: মোহনগঞ্জ সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় নেত্রকোনা জেলার মোহনগঞ্জ উপজেলায় অবস্থিত অন্যতম একটি মাধ্যমিক বিদ্যালয়। এটি মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, ঢাকা এর অধীনে পরিচালিত।
মোহনগঞ্জ সরকারি পাইলট হাই স্কুল প্রতিষ্ঠিত হয় ১৯৩১ সালে। মোহনগঞ্জের কাজিয়াটী গ্রামের সমাজসেবক আব্দুল আজিজ আহম্মদ কচুয়ারচরের জহিরুদ্দিন মাস্টার, আলোকদিয়ার নিমাই বেপারী, মানশ্রীর মির্জা আব্দুল আজিজ ও নওহালের সাদত মীরসহ এলাকার আরও বিশিষ্টজনদের সাথে মিলে ১৯২৬ সালের ডিসেম্বর মাসে টেঙ্গাপাড়ায় মোহনগঞ্জ জুনিয়র মাদ্রাসা স্থাপন করেন। মাদ্রাসার প্রধান শিক্ষক হিসেবে জহিরুদ্দিন মাস্টারকে দায়িত্ব দেয়া হয় এবং ১৯৩১ সালে এটিকে উচ্চ বিদ্যালয় হিসেবে রূপান্তরিত করা হয়। সে সময় উচ্চ বিদ্যালয় স্থাপনের জন্য ঢাকা বোর্ডে বিপুল পরিমাণে মঞ্জুরি প্রদান করতে হতো। মোহনগঞ্জের নিমাই বেপারী এই মঞ্জুরির পুরো টাকাটা প্রদান করায় তাঁকে এবং তাঁর অবর্তমানে তাঁর পরিবারের যে কোনো একজন সদস্যকে আজীবন স্কুল পরিচালনা কমিটির সদস্য হিসেবে রাখার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়।

এই সংবাদটি 1,018 বার পড়া হয়েছে