বুধবার, ১০ জানু ২০১৮ ০২:০১ ঘণ্টা

প্রযুক্তি ব্যবহারে শিক্ষা ব্যবস্থা এখনও পিছিয়ে: মোস্তফা জব্বার

Share Button

প্রযুক্তি ব্যবহারে শিক্ষা ব্যবস্থা এখনও পিছিয়ে: মোস্তফা জব্বার

অনলাইন ডেস্ক : প্রযুক্তি ব্যবহারে সব সেক্টর যথেষ্ট অগ্রগতি অর্জন করলেও দেশের শিক্ষা ব্যবস্থা এখনো অনেক পিছিয়ে রয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন ডাক ও টেলি যোগাযোগ এবং তথ্য-প্রযুক্তিমন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার। তিনি বলেন, এই সেক্টরে তথ্য-প্রযুক্তির ব্যবহার নেই বললেই চলে। যুগের সঙ্গে তাল মিলিয়ে আমরা এই ক্ষেত্রে পরিবর্তন আনতে পারিনি।

বুধবার সকালে রাজধানীর কারওয়ান বাজারে বেসিস কার্যালয়ে ‘বৈশ্বিক অর্থায়ন ব্যবস্থায় ব্লক চেইন- বাংলাদেশের করণীয়’ শীর্ষক গোলটেবিল বৈঠকে তিনি এসব কথা বলেন।

মোস্তাফা জব্বার আরও বলেন, এই অবস্থার উন্নতি করতে না পারলে শিক্ষিত জনগোষ্ঠী ডিজিটাল যুগের কর্মসংস্থানে অযোগ্য হয়ে পড়বে। এই বিশাল জনসংখ্যা আমাদের ঘাড়ের ওপর বোঝা হিসেবে চেপে বসবে বলেও মন্তব্য করেন তিনি।

ই-জেনারেশন লিমিটেড আয়োজিত এই বৈঠকে  তথ্য-প্রযুক্তিমন্ত্রী আরও বলেন, গত ৯ বছরে আমাদের অসাধারণ কিছু অর্জন আছে। অনেক বড়বড় কাজ হয়েছে। নতুন নেতৃত্বের দায়িত্ব হলো এর ধারাবাহিকতা ধরে রেখে অগ্রগতির পথে এগিয়ে যাওয়া। প্রযুক্তি যতক্ষণ না মানুষের কাছে পৌঁছাচ্ছে, জনগণ যতক্ষণ না তা ব্যবহার করছে, ততক্ষণ প্রযুক্তি কোনো পরিবর্তন আনতে পারে না।

মন্ত্রী বলেন, তথ্য-প্রযুক্তি খাতে আমাদের অসাধারণ কিছু অর্জন আছে। ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা, মোবাইল ফোন ব্যবহার, মোবাইল ব্যাংকিং এর মাধ্যমে প্রতিদিন কোটি কোটি টাকা কাগজহীনভাবে হাতবদল হওয়া, কল্পনার চাইতেও কিছু বেশি অর্জন। কিন্তু শিক্ষাখাতে বলতে গেলে কোনো অর্জনই নেই। দ্রুত এই অবস্থার উন্নতি করতে হবে।

এসময় নতুন কর্মী তৈরির পাশাপাশি সৃজনশীল খাতেও নজর দেওয়ার ওপর গুরুত্বারোপ করেন মোস্তফা জব্বার।তিনি বলেন, এজন্য আমাদের সাকসেসগুলো সবার সামনে তুলে ধরতে হবে। এতে প্রযুক্তির বাজারে আমাদের দাপট বাড়বে। ব্লকচেইনের মতো নতুন প্রযুক্তির ব্যবহার সাকসেসফুললি কাজে লাগাতে পারলে এই খাতের আয় এক সময় মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের জিডিপির কাছাকাছিও নেওয়া সম্ভব।

এই সংবাদটি 1,017 বার পড়া হয়েছে