বৃহস্পতিবার, ১১ জানু ২০১৮ ০৬:০১ ঘণ্টা

ইজতেমায় অংশ নেবেন না সাদ,কাকরাইল থেকেই বিদায় নিচ্ছেন

Share Button

ইজতেমায় অংশ নেবেন না সাদ,কাকরাইল থেকেই বিদায় নিচ্ছেন

ডেস্ক রিপোর্ট: আলেম উলামা ও তাবলিগের অনেক সাথীর মতামত উপেক্ষা করে বিশ্ব ইজতেমায় অংশ নেয়ার জন্য বাংলাদেশে আসা দিল্লির নেজামুদ্দিন মারকাজের জিম্মাদার মাওলানা সাদ কান্ধলভি এবারের ইজতেমায় অংশ নিতে পারবেন না বলে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

বৃহস্পতিবার স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামালের সভাপতিত্বে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ে বিকেলে এক গুরুত্বপূর্ণ বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

দুপুর ৩টার পর শুরু হওয়া বৈঠকে প্রশাসনের উর্ধ্বতন কর্মকর্তা, আলেম উলামা ও তাবলিগের শুরার সদস্যগণ উপস্থিত ছিলেন।

বৈঠকে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সবার মতামতের ভিত্তিতে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেন। তিনি বলেন, মাওলানা সাদ আমাদের কাছে একজন মেহমান। বিদেশি মেহমান এবং মর্যাদা ক্ষুণ্ন হয় এমন কিছু আমরা করতে পারি না। তিনি সসম্মানেই কাকরাইলে এসেছেন এবং সেখান থেকেই বিদায় গ্রহণ করবেন।

বৈঠক সূত্রে জানা যায়, কাল কাকরাইল মসজিদে জুমার নামাজের পর সংক্ষিপ্ত মুনাজাত করে তার স্বাচ্ছন্দময় ফ্লাইট অনুযায়ী দিল্লি রওনা হবেন।

তবে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী জানান, মুনাজাত বা জুমার নামাজে টঙ্গীর ইজতেমা মাঠ থেকে কোনো সাথী অংশগ্রহণ করতে পারবে না।

এমনকি কাকরাইল মসজিদের বাইরে একজন সাথীকেও দাঁড়াতে না পারে সে জন্য আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে নির্দেশ প্রদান করা হয়েছে।

যাত্রবাড়ী জামিয়া ইসলামিয়া দারুল উলুম মাদানিয়ার মুহতামিম মহিউস সুন্নাহ আল্লামা মাহমূদুল হাসানের উদ্বোধনী বক্তব্যের মাধ্যমে বৈঠক শুরু হয়।

বৈঠকে প্রধানমন্ত্রীর সামরিক সচিব মেজর জে. জয়নাল আবেদিন, র‌্যাব প্রধান বেনজির আহমেদ, পুলিশের আইজিপি শহিদুল হক,  এডিশনাল জি আিইডি মনিরুজ্জামান, ডিএমপি পুলিশ কমিশনার আসাদুজ্জামান মিয়া, এসবির প্রধানে জাবেদ পাটোয়ারী, আওয়ামী লীগের ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক শেখ আবদুল্লাহ, সেতু সচিব উপস্থিত ছিলেন।

আলেমদের মধ্যে বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন কওমি মাদরাসা শিক্ষাবোর্ড বেফাকের সিনিয়র সহসভাপতি আল্লামা আশরাফ আলী, মধুপুরের পীর মাওলানা আবদুল হামিদ, বেফাকের ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মাওলানা আবদুল কুদ্দুস, মারকাজুশ শাইখ জাকারিয়া ইসলামিক রিসার্চ সেন্টারের পরিচালক মুফতি মিযানুর রহমান সাঈদ, জামিয়া রাহমানিয়ার মুহতামিম মাওলানা মাহফুজুল হক, লালবাগ জামিয়া কুরআনিয়ার মুহাদ্দিস মুফতি ফয়জুল্লাহ, আম্বরশাহ জামে মসজিদের খতিব মাওলানা মাজহারুল ইসলাম, আফতাবনগর মাদরাসার মুহতামিম মুফতি মোহাম্মদ আলী, পীরে কামেল অধ্যক্ষ মিজানুর রহমান, জামিয়া ইমদাদিয়ার মুহাদ্দিস মাওলানা নুরুল আমিন, আল মানহাল ক্যাডেট মাদরাসার প্রিন্সিপাল মাওলানা কেফায়াতুল্লাহ আজহারী।

এছাড়াও বৈঠকে আওয়ার ইসলাম টোয়েন্টিফোর ডটকম সম্পাদক হুমায়ুন আইয়ুব বেঠকে উপস্থিত ছিলেন।

বৈঠকে তাবলিগের শুরার সদস্য সৈয়দ ওয়াসিফুল ইসলাম,  মাওলানা আবদুল হামিদ মাছুম, মুহাম্মাদ খান শাহাবুদ্দীন নাসিম, মাওলানা আশরাফ আলী ও ইউনুছ শিকদারও উপস্থিত ছিলেন।–সুত্র-আওয়ার ইসলাম

এই সংবাদটি 1,044 বার পড়া হয়েছে

WP Facebook Auto Publish Powered By : XYZScripts.com