বুধবার, ১৪ মার্চ ২০১৮ ০৮:০৩ ঘণ্টা

সৈয়দ আব্দুল্লাহকে বাহবলে সংর্বধনা

Share Button

সৈয়দ আব্দুল্লাহকে বাহবলে সংর্বধনা

সিলেট রিপোর্ট: বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের উপর ঐতিহাসিক রাজনৈতিক দলিল “সিলেটে বঙ্গবন্ধু’ গ্রন্থ রচনা করায় বাহুবলের গর্বিত কৃতি সন্তান, বাংলা সাহিত্যের খ্যাতিমান ইতিহাসবিদ, জাতীয় ইতিহাসবেত্তা, বঙ্গবন্ধু গবেষক ও মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক তরফরত্ন সৈয়দ আব্দুল্লাহকে আগামি ২৮মার্চ বুধবার এক বর্ণাঢ্য নাগরিক সংবর্ধনা প্রদানের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।এলক্ষে গতকাল সন্ধ্যা ৭ঘটিকায় বাহুবল উপজেলা চেয়ারম্যান এর বাসভবনে এক সভা উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মো আব্দুল হাইর সভাপত্তিত্বে বাহুবল প্রেসক্লাব সভাপতি সৈয়দ আব্দুল মান্নান এর পরিচালনায় অনুষ্টিত হয়। সভায় সর্বসম্মতিক্রমে বাহুবল উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মো আব্দুল হাইকে আহব্বায়ক, সাপ্তাহিক হবিগঞ্জ সংবাদের সম্পাদক ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সুহেল আহমদ কুটিকে যুগ্ম আহব্বায়ক ও জাতীয় শ্রমিক লীগ বাহুবল উপজেলা সাধারন সম্পাদক সৈয়দ এনামুল হককে সদস্য সচীব করে উপজেলার গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গের সমন্নয় ৩৫সদস্য বিশিষ্ট “তরফরত্ন সৈয়দ আব্দুল্লাহ সংবর্ধনা উদযাপন কমিটি” গঠন করা হয়। আগামি ২৮ মার্চ বুধবার বাহুবল উপজেলা মাঠে বাংলাদেশ সরকারের গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিবর্গ ও জাতীয় নেতৃবৃন্দের উপস্থিতিতে এই বর্নাঢ্য সংবর্ধনা প্রদান করা হবে।

এই সংবাদটি 1,035 বার পড়া হয়েছে

পরমানু শক্তিধর দেশ পকিস্তান বিশ্বের সন্ত্রাসবাদ নির্মূলে ইসলামি দেশগুলোর সেনাবাহিনীকে প্রশিক্ষণ দেয়ার ইচ্ছা প্রকাশ করেছে। সৌদি আরবের উদ্যোগে মুসলিম সামরিক জোটভুক্ত দেশগুলোর সেনাদের এই প্রশিক্ষণ দেয়া হবে।বাংলাদেশও এই জোটের অন্তর্ভুক্ত।  পাকিস্তান সেনাবাহিনীর পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, এসব দেশের সামরিক বাহিনীকে আধুনিক প্রশিক্ষণ, প্রযুক্তিগত সহায়তা ও প্রয়োজনীয় সামগ্রী সরবরাহ করবে দেশটি। জাতীয় নিরাপত্তা নীতির মতো বিষয়গুলোতেও সহায়তা দেবে পাকিস্তান। সামরিক কর্মকর্তাদের সাথে কথা বলার পরই এ বিষয়ে পাক প্রধানমন্ত্রী অনুমোদন দেবেন।  ইসলামি সামরিক জোটের ভূমিকা নিয়ে ইতোমধ্যে বিস্তারিত কথা বলেছে পাকিস্তান ও সৌদি আরব। সম্প্রতি জোটকে এগিয়ে নিতে পাকিস্তানকে অনুরোধও করেছে সৌদি প্রশাসন। এখানে পাক প্রশাসনের ভূমিকাকে গুরুত্বপূর্ণ হিসেবে দেখা হচ্ছে।  পাকিস্তানের কেন্দ্রীয় সরকার সূত্র জানিয়েছে, দুই ভ্রাতৃপ্রতীম দেশের মধ্যে সম্পর্ক আরো ঘনিষ্ঠ হয়েছে। কূটনৈতিক পর্যায়ে সৌদি আরব ও ইরানের মধ্যে উত্তেজনা কমিয়ে আনতেও কাজ করেছে পাকিস্তান। দেশটি এক্ষেত্রে তার ভূমিকা অব্যাহত রেখেছে।  সৌদি আরবের পক্ষ থেকেও বলা হয়েছে, যেকোনো সংকটপূর্ণ সময়ে তারা পাকিস্তানের পক্ষে দাঁড়াবে। পবিত্র কাবা শরিফসহ সৌদি আরবের অভ্যন্তরীণ নিরাপত্তায় সম্ভাব্য সব সহায়তা দেয়ার কথা জানিয়েছে পাক প্রশাসন।  ইসলামি সামরিক জোটভুক্ত দেশগুলোর নিরাপত্তা দিতে সমন্বিত একটি নীতি প্রণয়নের ব্যাপারেও একমত দুই দেশ। স্থল, নৌ ও আকাশ- সবক্ষেত্রে এই নীতি প্রণয়ন করা হবে বলে আশ্বাস দিয়েছে দেশটি। সূত্র: দ্য এক্সপ্রেস ট্রিবিউন
পরমানু শক্তিধর দেশ পকিস্তান বিশ্বের সন্ত্রাসবাদ নির্মূলে ইসলামি দেশগুলোর সেনাবাহিনীকে প্রশিক্ষণ দেয়ার ইচ্ছা প্রকাশ করেছে। সৌদি আরবের উদ্যোগে মুসলিম সামরিক জোটভুক্ত দেশগুলোর সেনাদের এই প্রশিক্ষণ দেয়া হবে।বাংলাদেশও এই জোটের অন্তর্ভুক্ত। পাকিস্তান সেনাবাহিনীর পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, এসব দেশের সামরিক বাহিনীকে আধুনিক প্রশিক্ষণ, প্রযুক্তিগত সহায়তা ও প্রয়োজনীয় সামগ্রী সরবরাহ করবে দেশটি। জাতীয় নিরাপত্তা নীতির মতো বিষয়গুলোতেও সহায়তা দেবে পাকিস্তান। সামরিক কর্মকর্তাদের সাথে কথা বলার পরই এ বিষয়ে পাক প্রধানমন্ত্রী অনুমোদন দেবেন। ইসলামি সামরিক জোটের ভূমিকা নিয়ে ইতোমধ্যে বিস্তারিত কথা বলেছে পাকিস্তান ও সৌদি আরব। সম্প্রতি জোটকে এগিয়ে নিতে পাকিস্তানকে অনুরোধও করেছে সৌদি প্রশাসন। এখানে পাক প্রশাসনের ভূমিকাকে গুরুত্বপূর্ণ হিসেবে দেখা হচ্ছে। পাকিস্তানের কেন্দ্রীয় সরকার সূত্র জানিয়েছে, দুই ভ্রাতৃপ্রতীম দেশের মধ্যে সম্পর্ক আরো ঘনিষ্ঠ হয়েছে। কূটনৈতিক পর্যায়ে সৌদি আরব ও ইরানের মধ্যে উত্তেজনা কমিয়ে আনতেও কাজ করেছে পাকিস্তান। দেশটি এক্ষেত্রে তার ভূমিকা অব্যাহত রেখেছে। সৌদি আরবের পক্ষ থেকেও বলা হয়েছে, যেকোনো সংকটপূর্ণ সময়ে তারা পাকিস্তানের পক্ষে দাঁড়াবে। পবিত্র কাবা শরিফসহ সৌদি আরবের অভ্যন্তরীণ নিরাপত্তায় সম্ভাব্য সব সহায়তা দেয়ার কথা জানিয়েছে পাক প্রশাসন। ইসলামি সামরিক জোটভুক্ত দেশগুলোর নিরাপত্তা দিতে সমন্বিত একটি নীতি প্রণয়নের ব্যাপারেও একমত দুই দেশ। স্থল, নৌ ও আকাশ- সবক্ষেত্রে এই নীতি প্রণয়ন করা হবে বলে আশ্বাস দিয়েছে দেশটি। সূত্র: দ্য এক্সপ্রেস ট্রিবিউন