সোমবার, ০৯ জুলা ২০১৮ ০১:০৭ ঘণ্টা

উবায়দুল্লাহ ফারুক লিখিত ‘ভূগোল মুসলিম বিশ্ব’ বইয়ের মোড়ক উন্মোচন

Share Button

উবায়দুল্লাহ ফারুক লিখিত ‘ভূগোল মুসলিম বিশ্ব’ বইয়ের মোড়ক উন্মোচন

জামিয়া মাদানিয়া বারিধারা-ঢাকা’র শায়খুল হাদীস জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশ-এর সাংগঠনিক সম্পাদক আল্লামা উবায়দুল্লাহ ফারুক লিখিত “ভূগোল মুসলিম বিশ্ব” বইয়ের আনুষ্ঠানিকভাবে মোড়ক উন্মোচন করা হয়েছে। গতকাল রাতে জামিয়া মাদানিয়া বারিধারার কাসেমি মিলনায়তনে বিশিষ্ট ব্যক্তিত্বদের অংশগ্রহণে এই মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

বইটির লেখক আল্লামা উবায়দুল্লাহ ফারুকসহ এতে উপস্থিত ছিলেন জামিয়া মাদানিয়া বারিধারার সহযোগী পরিচালক ও জমিয়তে উলামায়ে ইসলামের যুগ্মমহাসচিব মাওলানা হাফেজ নাজমুল হাসান, সিনিয়র মুহাদ্দিস ও জমিয়ত কেন্দ্রীয় অর্থনৈতিক সম্পাদক মুফতী মুনির হোসাইন কাসেমী, সিনিয়র শিক্ষক মুফতী জাকির হোসাইন, মাওলানা আবু সালেহ, মাওলানা শরীফ খালেদ সাইফুল্লাহ, মাওলানা আবু হানিফ, মাওলানা হাবীবুল্লাহ ইসলামপুরী, মাওলানা আল-আমীন, মাওলানা মুনির আহমদ প্রমুখ।

মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে জামিয়া মাদানিয়া বারিধারা’র সহযোগী পরিচালক হাফেজ মাওলানা নাজমুল হাসান বলেন, শায়খুল হাদীস আল্লামা উবায়দুল্লাহ ফারুক সাহেব হুজুর ছোট বেলা থেকেই ভূগোল নিয়ে গবেষণা করে আসছেন। ভৌগলিক অবস্থান ও বিশ্ব ভূরাজনীতির ইতিহাস সম্পর্কে তিনি সম্যক ধারণা ও অভিজ্ঞতা রাখেন। তিনি “ভূগোল মুসলিম বিশ্ব” বইয়ে অত্যন্ত সহজ ও প্রাঞ্জল ভাষায় মুসলিম বিশ্বের অতীত ইতিহাস এবং বর্তমান আর্থ-সামাজিক ও রাজনৈতিক-সামরিক কৌশলগত অবস্থানের বিষয়টি অত্যন্ত সুন্দরভাবে ফুটিয়ে তুলেছেন। বইয়ে তিনি অত্যন্ত মূল্যবান একটি রঙিন নিখুঁত মানচিত্র তথ্য-প্রমাণ দিয়ে যুক্ত করেছেন। মানচিত্রটি দেখলে পাঠক অত্যন্ত সহজেই বুঝতে পারবেন যে, ঊনবিংশ শতাব্দির প্রথমভাগ পর্যন্ত বিশ্বব্যাপী মুসলিম সাম্রাজ্যের পরিধি কতটা বিস্তৃত ছিল।

মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে জামিয়া মাদানিয়া বারিধারার সিনিয়র মুহাদ্দিস মুফতী মুনির হোসাইন কাসেমী বলেন, প্রখ্যাত ভূগোলবিদ আল্লামা উবায়দুল্লাহ ফারুক সাহেব হুজুরের “ভূগোল মুসলিম বিশ্ব” বইটি প্রতিটি মাদ্রাসা ছাত্র, মুসলিম রাজনীতিবিদ, লেখক ও গবেষকদের জন্য সংগ্রহে রাখার মতো অত্যন্ত জরুরী ও ‍মূল্যবান একটি গ্রন্থ। মুসলমানদের গৌরবমত অতীত পর্যালোচনা এবং সেখান থেকে শিক্ষার্জন, ভুল সংশোধন, আত্মজিজ্ঞাসা ও সঠিক লক্ষ্য নির্ধারণের জন্য বইটি এক অনন্য সংকলন। বইটি রচনার জন্য আমরা লেখককে অভিনন্দন ও মোবারকবাদ জানাই। আমি মনে করি, বইটি প্রতিটি মাদ্রাসার মাধ্যমিক স্তরে সিলেবাসভুক্ত করা যেতে পারে ।

এই সংবাদটি 1,070 বার পড়া হয়েছে