বৃহস্পতিবার, ১৫ নভে ২০১৮ ১১:১১ ঘণ্টা

‘নাগরী স্যার’ খ্যাত প্রফেসর এরহাসুজ্জামানের জানাযা আজ

Share Button

‘নাগরী স্যার’ খ্যাত প্রফেসর এরহাসুজ্জামানের জানাযা আজ

সিলেট রিপোর্ট: ‘নাগরী স্যার’ খ্যাত সিলেট সরকারি এমসি কলেজের সাবেক অধ্যাপক জ্ঞান তাপস এরহাসুজ্জামানের জানাযা আজ বৃহস্পতিবার বেলা আড়াইটায় সিলেট শহরতলীর শিবেরবাজার রাজারগাঁও উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে অনুষ্ঠিত হবে।

গত মঙ্গলবার সন্ধ্যায় সিলেট সদর উপজেলার বাবুরাগাওয়ে নিজ বাড়িতেই তিনি শেষ নি:শ্বাস ত্যাগ করেন। যুক্তরাজ্য থেকে স্বজনদের দেশে ফেরার অপেক্ষায় ছিল তার পরিবার।

এদিকে, সিলেট নাগরী চত্বরকে অধ্যাপক এরহাসুজ্জামান ‘নাগরী স্যার’ এর নামে নামকরণের দাবি তুলেছেন লেখক-সাহিত্যিক গবেষকরা।

শহরে তিনি নাগরী স্যার নামে পরিচিত হলেও গ্রামের লোকজন তাকে চিনত ‘আয়না পীর’ নামে। স্বজনরা জানান, মঙ্গলবার মৃত্যু হলেও স্বজনদের অপেক্ষায় ছিলেন। তারা গতকাল বুধবার সন্ধ্যায় বাড়ি পৌঁছেছেন। আজ বুধবার তার জানাযা শেষে পারিবারিক কবরস্থানে তাকে দাফন করা হবে।

সিলেটে প্রায় বিলুপ্ত হয়ে যাওয়া ‘নাগরী লিপির প্রচার প্রসার ও নাগরী লিপি রক্ষায় মুখ্য ভুমিকা পালনকারী নাগরী স্যারের মৃত্যুর খবরে সিলেটের সাহিত্য-সাংস্কৃতিক অঙ্গনে শোকের ছায়া নেমে আসে।

ব্যক্তি জীবনে অকৃতদার নাগরী স্যার অতি সাধারণ জীবন যাপনে অভ্যস্ত ছিলেন। নাগরী স্যারের মৃত্যুর খবরে অনেকেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বিভিন্ন স্মৃতিচারণ করেন।

কবি আবিদ ফায়সাল ফেইসবুকে লেখেন-‘হাজার হাজার শিক্ষার্থীর ছিলেন গর্বিত অভিভাবক আর নাগরীলিপির সাহিত্যভা-ারের লালন ও সংরক্ষণের বিস্ময়কর সাধক ছিলেন অধ্যাপক এরহাসুজ্জামান।’

‘নাগরী বর্ণমালা হাতে লিখে, তাঁর কষ্টার্জিত অর্থ ব্যয়ে বই প্রকাশ করে ছাত্র-শিক্ষক এবং পরিচিতবৃত্তের মানুষের হাতে হাতে তুলে দিতেন। নাগরীলিপি লালন ও চর্চায় আজীবন অবদান রাখার জন্য তাঁকে আজীবন সম্মাননা প্রদান করে এ বছর উৎস প্রকাশন। এবং এর কর্ণধার নাগরী গবেষক মোস্তফা সেলিম একটি প্রামাণ্য স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র নির্মাণ করেন।’

আবিদ ফায়সাল সুরমা মার্কেট পয়েন্টে নির্মিত নাগরী চত্বরটি তাঁর (অধ্যাপক এরহাসুজ্জামান) নামে নামকরণের দাবি জানান। তিি এই নাগরী সাধকের স্মৃতির প্রতি গভীর শ্রদ্ধা নিবেদন করেন।

এম সি কলেজে শোকসভা

বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ গণিত বিভাগের প্রফেসর এরহাসুজ্জামান (নাগরী স্যার) মৃত্যুতে গতকাল বুধবার এমসি কলেজের গণিত বিভাগ এক শোক সভার আয়োজন করে। গণিত বিভাগের বিভাগীয় প্রধান প্রফেসর মো: আনোয়ার হোসেন চৌধুরীর সভাপতিত্বে এক শোক সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় বক্তারা প্রফেসর এরহাসুজ্জামানের বর্ণাঢ্য জীবন ও ৬০০ বছরের পুরনো সিলেটের ঐতিহ্য লিপি নাগরী বিষয়ক গবেষণাকর্ম নিয়ে বক্তব্য রাখেন। সভায় প্রফেসর এরহাসুজ্জামানের রুহের মাগফেরাত কামনা করেন।

এই সংবাদটি 1,019 বার পড়া হয়েছে

WP Facebook Auto Publish Powered By : XYZScripts.com