ভোপালে ৮ মুসলিমকে এনকাউন্টার : মুখ খুললেন মমতা ব্যানার্জি

প্রকাশিত: ১১:০৪ পূর্বাহ্ণ, নভেম্বর ৩, ২০১৬

ভোপালে ৮ মুসলিমকে এনকাউন্টার : মুখ খুললেন মমতা ব্যানার্জি

ডেস্ক রিপোর্ট:  ভারতের ভোপালে জেল পালানো আট ইসলামপন্থীকে হত্যা প্রসঙ্গে এবার মুখ খুললেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি৷ জানালেন, এই এনকাউন্টার বিশ্বাসযোগ্য নয়৷ ঘটনার কথা প্রকাশ হওয়া মাত্রই এনকাউন্টারের সত্যতা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন অনেকে৷ প্রশাসন ও পুলিশের পরস্পরবিরোধী মন্তব্য নিয়ে সরব হয়েছে বিরোধীরা৷ ঘটনায় ঘৃতাহুতি দিয়েছে এনকাউন্টারে প্রকাশিত একটি ভিডিও৷ সেখানে পুলিশের উগ্রবাদীদের মারার হুমকি থেকে শুরু করে উগ্রবাদীদের পোশাক এমনকী তাদের কাছ থেকে পাওয়া ছুরি নিয়েও নানা সন্দেহ দানা বেঁধেছে৷

ভারত সরকারের পক্ষ থেকে ঘটনার সাফাই দেয়ার চেষ্টা হলেও, ভুয়া এনকাউন্টারের তত্ত্বই ক্রমশ দানা বাঁধছে৷ এবার এ নিয়ে সন্দেহ প্রকাশ করলেন মমতাও৷

বুধবার এ প্রসঙ্গে মন্তব্য করতে গিয়ে টুইটারে তিনি জানালেন, এ নিয়ে একাধিক প্রশ্ন উঠছে৷ দীর্ঘকালীন রাজনৈতিক প্রতিহিংসার কারণেই এ ঘটনা ঘটানো হয়েছে বলে সন্দেহ প্রকাশ করেছেন তিনি৷ তবে তার আশঙ্কা এই ধরনের ঘটনা ঘটতে থাকলে দেশের একতা ও সংহতিই প্রশ্নের মুখে পড়বে৷

কোমরের ওপর গুলি করে এনকাউন্টার?‌

এনকাউন্টারে মৃত ৮ জনের ময়নাতদন্তের রিপোর্ট সামনে এসেছে। রিপোর্টে দেখা গেছে, এদের সকলকেই কোমরের ওপর গুলি করে হত্যা করা হয়েছে। এদের এক একজনের শরীরে রয়েছে একাধিক গুলির চিহ্ন। মঙ্গলবার একসুরে বিরোধিরা ইসলামি সংগঠন সিমির সদস্যদের হত্যার ঘটনা নিয়ে সন্দেহ প্রকাশ করে। গোটা ঘটনার বিচারবিভাগীয় তদন্তেরও দাবি তোলা হয়। সিপিএমের পক্ষ থেকে বলা হয়, জঙ্গি সন্দেহে গ্রেপ্তার হওয়া বিচারাধীন বন্দিদের হঠাৎ কিভাবে এমন মৃত্যু ঘটল, তা নিরপেক্ষ তদন্ত করে দেখা উচিত। সন্দেহ প্রকাশ করে বলা হয়, যে বন্দিরা পালানোর পর সমাস্য একটি গাড়ি জোগাড় করতে পারে না, তারা অস্ত্র পেল কিভাবে। যদিও বিরোধীদের এই সব অভিযোগকেই উড়িয়ে দিয়েছে প্রশাসন। বলা হয়েছে, বিরোধীরা সংখ্যালঘু ভোটব্যাঙ্ককে অক্ষত রাখতে নোংরা রাজনীতি করছে।

এই সংবাদটি 183 বার পঠিত হয়েছে

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com