বুধবার, ১৮ সেপ্টে ২০১৯ ০৪:০৯ ঘণ্টা

রোহিঙ্গা গণহত্যার খলনায়িকা সুচি’র বিচারের ইঙ্গিত

Share Button

রোহিঙ্গা গণহত্যার খলনায়িকা সুচি’র বিচারের ইঙ্গিত

ডেস্ক রিপোর্ট :
রোহিঙ্গা মুসলিম গণহত্যার খলনায়িকা মিয়ানমারের নেত্রী অং সান সু চি মানবতার বিরোধী অপরাধের জন্য বিচারের মুখোমুখি হতে পারেন।

মিয়ানমারবিষয়ক জাতিসংঘের বিশেষজ্ঞ পর্যবেক্ষক ইয়াং লি এতথ্য জানিয়েছেন। খবর এএফপি’র।

ইয়াং লি বলেছেন, দেশটির সর্বোচ্চ নেত্রী ও বেসামরিক নেতা হিসেবে রোহিঙ্গাদের ওপর নির্যাতনে দেশটির সেনাবাহিনীর জাতিগত শুদ্ধি অভিযানে নিষ্ক্রিয় থাকার কারণে তার বিচার হতে পারে।

মঙ্গলবার জেনেভায় জাতিসংঘের শীর্ষ মানবাধিকার সংস্থাকে দেয়া এক প্রতিবেদনে মিয়ানমারে স্বাধীন আন্তর্জাতিক ফ্যাক্ট ফাইন্ডিং কমিটির তদন্তকারীদের একটি প্যানেল বলেছে- মিয়ানমারে ৬ লাখ ৬০ হাজার রোহিঙ্গা নির্যাতনের মুখোমুখি হচ্ছে। এ ব্যাপারে সু চি তার দায়িত্ব এড়াতে পারেন না। নোবেল কমিটি তাদের বিবৃতিতে সু চিকে নোবেল পুরস্কার দেয়ার তিনটি কারণ উল্লেখ করেছিল, যার প্রতিটি লঙ্ঘন করেছেন তিনি।

মিয়ানমারবিষয়ক জাতিসংঘের বিশেষজ্ঞ পর্যবেক্ষক, বিদ্রোহীদের বিরুদ্ধে অভিযানের অংশ হিসেবে সামরিক বাহিনী রাখাইন রাজ্যের বেসামরিক অঞ্চলে হেলিকপ্টার গানশিপ, ভারী আর্টিলারি এবং ল্যান্ড মাইন ব্যবহার করছে। রাখাইনে পুরুষদের মারাত্মক নির্যাতন করা হয়েছে এবং রাখাইন গ্রাম পুড়িয়ে দেয়া হয়েছে।

জাতিসংঘের তদন্তকারীরা বলেন, সেনা পদক্ষেপের বিষয়ে অং সান সু চির কোনো নিয়ন্ত্রণ ছিল না। তবে মিয়ানমারের পার্লামেন্টে ৬০ শতাংশ আসন নিয়ন্ত্রণকারী একটি দলের প্রধান হিসেবে তিনি এমন একটি সরকারকে নেতৃত্ব দিচ্ছেন, যেসব আইন পরিবর্তনের ক্ষমতা রাখে।

বিদ্যমান পরিস্থিতি এবং মানবাধিকারের জন্য সু চির ব্যাপক ও বিস্তৃত দায়িত্ব ছিল বলেও জানায় তদন্তকারী দল।

এই সংবাদটি 1,004 বার পড়া হয়েছে

WP2FB Auto Publish Powered By : XYZScripts.com