বুধবার, ০৪ ডিসে ২০১৯ ০৭:১২ ঘণ্টা

পাথর উত্তোলন করে পরিবেশ বিনষ্টের মহড়া করা চলবে না: প্রবাসীকল্যাণ মন্ত্রী

Share Button

পাথর উত্তোলন করে পরিবেশ বিনষ্টের মহড়া করা চলবে না: প্রবাসীকল্যাণ মন্ত্রী

সিলেট রিপোর্ট :
প্রবাসীকল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থানমন্ত্রী ইমরান আহমদ বলেছেন, জাফলংসহ সবকটি পর্যটন এলাকার পরিবেশ রক্ষায় সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে। সনাতন পদ্ধতির দোহাই দিয়ে কোয়ারীসমূহে পাথর উত্তোলন করে পরিবেশ বিনষ্টের মহড়া করা চলবে না। কোনক্রমেই পরিবেশ ভারসাম্য বিনষ্ট করা যাবেনা। পাথর উত্তোলন করে সৌন্দর্য বিনষ্টের হুলিখেলা থেকে আমাদের দ্রুত বেরিয়ে আসতে হবে।

বুধবার (৪ ডিসেম্বর) দুপুর ১২টায় সিলেটের জাফলংয়ে এনআরবি ব্যাংক জাফলং শাখার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলে প্রবাসীকল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থানমন্ত্রী ইমরান আহমদ।

এসময় তিনি আরও বলেন, কোয়ারী এলাকা থেকে টাকা কামিয়ে সিলেট শহরের আশপাশে আবাসস্থল গড়ে আয়েসি জীবন যাপনকারী মুষ্টিমেয় লোকের কারণে একটি এলাকাকে ধ্বংস করতে দেয়া যাবেনা। বুঝতে হবে, প্রকৃতির সাথে বিরূপ আচরণ করলে এবং পরিবেশ বিপর্যয় ঘটালে প্রকৃতিও কাউকে ক্ষমা করে না। পাথর উত্তোলন করে নদীর তীরবর্তী মানুষের বাড়িঘর নদীগর্ভে বিলীনসহ ধ্বংসাত্মক পরিবেশ সৃষ্টির মহড়া আর চলতে দেয়া হবে না।

মন্ত্রী বলেন, জাফলং শুধু দেশে নয় বহির্বিশ্বেও পর্যটন এলাকা হিসেবে একটি আকর্ষণীয় স্থান। সারা দেশের পাশাপাশি বিদেশী পর্যটকরাও জাফলং ঘুরতে আসেন, আনন্দ পান। তাদের জন্য ভালো পরিবেশ রাখতে হবে। নির্মল পরিবেশ থাকলে পর্যটন খাতে বিনিয়োগ করেও লাভবান হওয়া সম্ভব। ভবিষ্যৎ প্রজন্মের জন্য জাফলংকে সংরক্ষিত করে রাখতে হবে। তা না হলে তারা আমাদের ক্ষমা করবেনা। সবাইকে এটা বুঝতে হবে। আমাদের সবাইকে কোয়ারীর পাথরের বাহিরে বিকল্প কর্মসংস্থানের চেষ্টা করতে হবে। সরকার যা করছে জনকল্যাণে করছে এবং তা আমাদের ভালোর জন্য করছে।

এনআরবি ব্যাংক জাফলং শাখার ব্যবস্থাপক ফেরদৌস করিমের সভাপতিত্বে ও বাংলাদেশ বেতারের সংবাদ পাঠক জাবেদ কাদেরর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন ব্যাংককের চেয়ারম্যান মাহতাবুর রহমান নাসির (সিআইপি), ভাইস চেয়ারম্যান থাতাইয়ামা কবির, পরিচালক জাহিদ ইকবাল, আমিনুর রশিদ খান, সাব্বির আহমদ চৌধুরী, ব্যবস্থাপনা পরিচালক মেহমুদ হোসাইন, সিআইপি কাজী হাবিব, হেড অব বিজনেস অলি আহমদ চৌধুরী, গোয়াইনঘাট উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মো. ফারুক আহমদ, গোয়াইনঘাটের উপজেলা নির্বাহী অফিসার বিশ্বজিৎ কুমার পাল, গোয়াইনঘাট সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ ফজলুল হক, গোয়াইনঘাট সার্কেলের সিনিয়র পুলিশ সুপার নজরুল ইসলাম, গোয়াইনঘাটের উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. ইব্রাহিম, থানা অফিসার ইনচার্জ মো. আব্দুল আহাদ প্রমুখ।

এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক গোলাম কিবরিয়া হেলাল, যুগ্ম সম্পাদক সামসুল আলম, সহসভাপতি গোলাপ মিয়া, দপ্তর সম্পাদক মুজিবুর রহমান, ব্যবসায়ী জালাল উদ্দিন, সরোয়ার হোসেন ছেদু, ইলিয়াছ উদ্দিন লিপু, জাকির খান, আব্দুর রহিম খান প্রমুখ।

এই সংবাদটি 1,005 বার পড়া হয়েছে

WP2FB Auto Publish Powered By : XYZScripts.com