রবিবার, ২২ ডিসে ২০১৯ ০৮:১২ ঘণ্টা

‘আপনাদের গুলি ফুরিয়ে যাবে কিন্তু ভারতের প্রতি আমাদের ভালোবাসা ফুরাবে না’

Share Button

‘আপনাদের গুলি ফুরিয়ে যাবে কিন্তু ভারতের প্রতি আমাদের ভালোবাসা ফুরাবে না’

অনলাইন ডেস্ক :সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের (সিএএ) প্রতিবাদে উত্তাল পুরো ভারত। ঠিক এ সময় ইউনাইডেট মুসলিম অ্যাকশন কমিটির ডাকা বিশেষ বৈঠকে অল ইন্ডিয়া মজলিস-ই-ইত্তেহাদুল মুসলিমিনের (এমআইএম) সভাপতি ব্যারিস্টার আসাদউদ্দিন ওয়াইসি ভারতকে মুসলিমদের ভালোবাসার কথা জানিয়েছেন। বিক্ষোভকারীদের ওপর হামলার বিষয়ে তিনি বলেন, ‘আপনাদের গুলি ফুরিয়ে যাবে কিন্তু ভারতের প্রতি আমাদের ভালোবাসা ফুরাবে না’

দেশব্যাপী আন্দোলনের মধ্যে শনিবার সন্ধ্যায় হায়দরাবাদে অল ইন্ডিয়া মজলিস-ই-ইত্তেহাদুল মুসলিমিনের (এমআইএম) সদর দফতরে সংগঠনটির বিশেষ বৈঠকে তিনি এ কথা বলেন।

তিনি আরও বলেন, বলা হচ্ছে, পৃথিবীতে আরও অনেক মুসলিম দেশ রয়েছে। সেখানে চলে যান। কেন যাব? আপনারা যান দেখি! ভারতে জন্মেছি আমি। ভারতকেই ভালোবাসি। তাই এই দেশ নিয়েই যাবতীয় মাথাব্যথা আমার। গুলি চালানোর হলে চালান। আপনাদের গুলি ফুরিয়ে যাবে। কিন্তু ভারতের প্রতি আমাদের ভালোবাসা ফুরাবে না।

ওয়াইসি বলেন, এটা শুধু মুসলিমদের সমস্যা নয়, বরং প্রত্যেক ভারতবাসীর সমস্যা। মোদিভক্তদের বলে রাখি, কাগজপত্র হাতে নিয়ে আপনাদেরও কিন্তু লাইনে দাঁড়াতে হবে!। খবর আনন্দবাজার পত্রিকার।

তিনি বলেন, লাইনে দাঁড়িয়ে ভারতীয় হওয়ার প্রমাণ দিতে হবে কেন? এই মাটিতে জন্মেছি আমি। এই দেশেরই বাসিন্দা। তারপরও ১০০ কোটি মানুষকে লাইনে দাঁড়াতে হবে। প্রমাণ দিতে হবে নাগরিকত্বের।

দেশভাগের সময় ভারতে থেকে গেলেও, স্বাধীনতার ৭০ বছর পরও ভারতে মুসলিমদের সন্দেহের চোখে দেখা হয় বলেও অভিযোগ তোলেন ওয়াইসি। তিনি বলেন, জিন্নার দ্বি-জাতি তত্ত্ব প্রত্যাখ্যান করে দেশভাগের সময় এ দেশেই থেকে গিয়েছিলেন ভারতীয় মুসলিমরা। আঘাত নয়, সর্বত্রভাবে এ দেশকে রক্ষা করতেই লড়াই চালিয়ে যাচ্ছি আমরা। তা সত্ত্বেও স্বাধীনতার ৭০ বছর পরও মর্যাদার জন্য লড়াই করতে হচ্ছে ভারতীয় মুসলিমদের। সবার সন্দেহ দূর করতে হচ্ছে।

দেশের সংবিধানকে রক্ষা করতে সিএএ ও এনআরসির বিরুদ্ধে একজোট হয়ে প্রতিবাদ জানাতে সবাইকে বাড়িতে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করতেও আহ্বান জানান ওয়াইসি।

এই সংবাদটি 1,023 বার পড়া হয়েছে

WP2FB Auto Publish Powered By : XYZScripts.com