মহানবী সা.-এর ব্যঙ্গচিত্র পুন:প্রকাশের প্রতিবাদে সিলেটে বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের মানববন্ধন

প্রকাশিত: ৮:২৩ পূর্বাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ৫, ২০২০

মহানবী সা.-এর ব্যঙ্গচিত্র পুন:প্রকাশের প্রতিবাদে সিলেটে বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের মানববন্ধন

সিলেট রিপোর্ট:

বাংলাদেশ খেলাফত মজলিস সিলেট জেলা ও মহানগর শাখার যৌথ উদ্যোগে সুইডেনে পবিত্র কুরআনে অগ্নি সংযোগ,ডেনমার্কে কোরআনের পাতা ছিড়ে অবমাননা ও ফ্রান্সের ম্যাগাজিন শার্লি হেবদোর চলতি সংখ্যায় মহানবী সা.-এর ব্যঙ্গচিত্র পুন:প্রকাশের প্রতিবাদে নগরীর কোর্টপয়েন্টে আজ শুক্রবার (৪ সেপ্টেম্বর) এক বিশাল মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

জেলা সভাপতি মাওলানা মুহাম্মদ ইকবাল হুছাইনের সভাপতিত্বে ও মহানগর শাখার সাধারণ সম্পাদক আলহাজ্ব মাওলানা এমরান আলমের সঞ্চালনায় মানববন্ধনে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের কেন্দ্রীয় নায়বে আমীর মাওলানা রেজাউল করিম জালালী,বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন কেন্দ্রীয় যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা আব্দুল আজিজ।

মানববন্ধনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মাওলানা রেজাউল করিম জালালী বলেন, সম্প্রতি ডেনমার্ক ও সুইডেনে পবিত্র কুরআনের অবমাননা এবং ফ্রান্সের ‘শার্লি হেবদো’ তে মহানবী সা. এর ব্যঙ্গচিত্র পুন:প্রকাশে আমরা তীব্র নিন্দা ও ক্ষোভ প্রকাশ করছি।এটা চূড়ান্ত সীমালঙ্ঘন, বর্বর ও ঘৃণ্য কাজ।সভ্যতার দাবিদার পশ্চিমা এই দেশগুলোতে অসভ্যতা ও উগ্রবাদের আস্ফালন আধুনিক এই সভ্য বিশ্বে কোনভাবেই মেনে নেয়া যায় না।এসব জঘন্য ও নোংরা অসাম্প্রদায়িক কার্যকলাপের মাধ্যমে শান্তিপ্রিয় বিশ্ববাসীকে চরমপন্থার দিকে ঠেলে দেওয়া হচ্ছে।

পবিত্র কুরআনুল কারিম আগুনে পোড়ানো বিশ্বের প্রায় দুই বিলিয়ন মুসলিমের হৃদয় ও অনুভূতিকে আগুনে জ্বালানোর নামান্তর।কুরআনে অগ্নিসংযোগ করে বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়া কুরআনের শান্তিরবার্তা মিটিয়ে দেওয়া যাবে না।কিয়ামত পর্যন্ত কুরআনের আলোয় বিশ্বে শান্তি প্রতিষ্ঠা হবে।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা আব্দুল আজিজ বলেন, মতপ্রকাশের স্বাধীনতার নামে অন্যকে আঘাত করার অধিকার কারও নেই। ফরাসি ম্যাগাজিন শার্লি হেবদোর প্রতি তীব্র নিন্দা জানিয়ে বলেন, ব্যঙ্গচিত্র প্রকাশের মতো এমন অবৈধ ও নোংরা মানসিকতা অসভ্যতা ও বর্বরতার নামান্তর।মহানবী স.কে মুসলমানরা প্রাণের চেয়ে বেশি ভালোবাসে।নবীজীর স.অবমাননা বিশ্বের মুসলমানরা বরদাশত করবে না।বিশ্বের শান্তি, শৃঙ্খলার জন্য এসব সাম্প্রদায়িক উস্কানী বন্ধ না করলে কুরআন ও মহানবীর স.ইজ্জত ও সম্মান রক্ষার জন্য বিশ্বব্যাপী বিদ্রোহের দাবানল জ্বলে উঠবে।

বক্তারা বলেন, বর্তমানে বিশ্বজুড়ে আমরা ইসলামফোবিয়া, বর্ণবাদ এবং জেনোফোবিয়ার ক্রমবর্ধমান প্রবণতা দেখছি। আন্তর্জাতিক সম্প্রদায় শিগগিরই এ জাতীয় প্রবণতা নির্মূল করতে উদ্যোগ নিতে হবে।বাংলাদেশ সরকারের পক্ষ থেকে ফ্রান্স, সুইডেন ও ডেনমার্ক সরকারের কাছে উদ্বেগ ও প্রতিবাদ জানিয়ে এধরনের কাজের সাথে জড়িতদের বিচারের আওতায় আনার জন্য আহবান জানাতে হবে।বিশ্বের মুসলিম উম্মাহকে ঐক্যবদ্ধভাবে বিশ্বজুড়ে ইসলাম বিদ্বেষীদের অপতৎপরতা রুখে দেওয়ারও আহবান জানান বক্তারা।

মানববন্ধনে আরো বক্তব্য রাখেন, বাংলাদেশ খেলাফত মজলিস সিলেট মহানগরীর সভাপতি মাওলানা গাজী রহমত উল্লাহ,সিলেট জেলা সহসভাপতি মাওলানা জাহিদ উদ্দিন চৌধুরী, মাওলানা আব্দুল মান্নান জালালাবাদী,মাওলানা ক্বারী উবায়দুর রহমান,জেলা সাধারণ সম্পাদক হাফিজ মাওলানা আতিকুর রহমান, মহানগর সহসাধারণ সম্পাদক মুহা.আব্দুল গফফার,জেলা সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা ফখরুল ইসলাম, মাওলানা মুতাসিম বিল্লাহ জালালী, মহানগর সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা সানা উল্লাহ,
জেলা বায়তুল মাল সম্পাদক হাফিজ মাওলানা আবদুর রব,প্রশিক্ষণ সম্পাদক মুফতী মুহাম্মদ মাহবুবুল হক, মহানগর প্রশিক্ষণ সম্পাদক হাফিজ মাওলানা রেজাউল হক,জেলা অফিস ও প্রচার সম্পাদক মুফতী সৈয়দ নাছির উদ্দিন আহমদ, মহানগর প্রচার সম্পাদক হাফিজ মাওলানা এখলাছুর রহমান, সমাজকল্যাণ সম্পাদক মাওলানা কমর উদ্দিন,জেলা নির্বাহী সদস্য হাফিজ মাওলানা শিহাবুল ইসলাম,মহানগর নির্বাহী সদস্য মাওলানা সিরাজ উদ্দিন, মাওলানা সামছুল ইসলাম, ক্বারী মাওলানা আবুল হোসেন,মাওলানা ফয়জুন নুর,হাফিজ সাইফুল ইসলাম, হাফিজ আখতার,মুহা.শাব্বির আহমদ,মাওলানা আব্দুল মালিক,ক্বারী মাওলানা আব্দুল মালিক,শাহপরান থানা সভাপতি মাওলানা আব্দুল হামিদ প্রমুখ।

এই সংবাদটি 94 বার পঠিত হয়েছে

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

[latest_post][single_page_category_post]

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com