লন্ডন এশায়াতুল ইসলাম মাদ্রাসার প্রিন্সিপাল মাওলানা তহুর উদ্দিন (র)

প্রকাশিত: ১০:১৮ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ১৬, ২০২১

লন্ডন এশায়াতুল ইসলাম মাদ্রাসার প্রিন্সিপাল মাওলানা তহুর উদ্দিন (র)

সিলেট রিপোর্ট :
লন্ডন এশা’আতুল ইসলাম ফোর্ড স্কোয়ার মসজিদের অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা, ট্রাস্টি এবং লন্ডন ইসলামিক স্কুলের প্রিন্সিপাল ও জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম ইউকের অন্যতম উপদেষ্টা মাওলানা তহুর উদ্দীন গত ১২ নভেম্বর শুক্রবার ব্রিটেনের স্থানীয় সময় দুপুরে বার্মিংহামে নিজ বাসভবনে ইন্তেকাল করেন। ইন্না লিল্লাহে ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজেউন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৭৬ বছর।

বৃটেনের প্রবীণ শীর্ষ আলেমে দ্বীন ও জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম ইউকের অন্যতম উপদেষ্টা মাওলানা তহুর উদ্দীনের ইন্তেকালে জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম ইউকের নেতৃবৃন্দ গভীর শোক ও সমবেদনা জানিয়েছেন। ১৫ নভেম্বর সোমবার এক যৌথ শোক বার্তায় নেতৃবৃন্দ বলেছেন মাওলানা শায়খ তহুর উদ্দিন রহ. ইন্তেকালে আমরা একজন দরদী অভিভাবককে হারালাম। লন্ডনে দ্বীনি শিক্ষার প্রচার ও প্রসারে তিনি আমৃত্যু কাজ করে গেছেন। ফোর্ড স্কোয়ার মসজিদ ও মাদ্রাসার জন্য তার অবদান ও ত্যাগ অপরিসীম । সকাল ১১টায় মসজিদে এসে রাত ৯টা পর্যন্ত মসজিদ এবং মাদ্রাসায় অবস্থান ছিল তাঁর দীর্ঘকালের দৈনন্দিন রুটিন । ফোর্ড স্কোয়ার মসজিদ মাদ্রাসাই ছিল তাঁর জীবনের প্রাণ । তার এ সকল অবদান লন্ডনের মুসলমান আজীবন শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ রাখবে। আমরা দোয়া করি মহান আল্লাহ তায়ালা তার জীবনের সব নেক আমলকে কবুল করে তাঁর দ্বীনের এই নিরলস খাদিমকে মাগফিরাত করে জান্নাতুল ফিরদাউস নসীব করুন ।

বিবৃতিতে স্বাক্ষর করেন জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম ইউকের প্রধান উপদেষ্টা মাওলানা শায়খ আসগর হোসাইন, সভাপতি মাওলানা শুয়াইব আহমদ ,সিনিয়র সহ সভাপতি মাওলানা মুফতি আব্দুল মুনতাকিম, হাফিজ মাওলানা সৈয়দ তছদ্দুক আহমদ, মাওলানা ফখরুদ্দীন সাদিক, মাওলানা হামিদুর রহমান হিলাল, মাওলানা আব্দুল মজিদ, মাওলানা শাহ আমিনুল ইসলাম, মাওলানা আব্দুস সালাম, মাওলানা আওলাদ হুসেন, জেনারেল সেক্রেটারী হাফিজ মাওলানা সৈয়দ তামীম আহমদ, জয়েন্ট সেক্রেটারী মাওলানা আশফাকুর রহমান, মাওলানা শামসুল আলম ক্বিয়ামপূরী, হাফিজ মাওলানা আব্দুল হক, ট্রেজারার হাফিজ হুসাইন আহমদ বিশ্বনাথী, সহকারী ট্রেজারার মুফতি মুতাহির সিদ্বিক, মাওলানা আব্দুর রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা সৈয়দ নাঈম আহমদ, সহ সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা আখতারুজ্জামান, হাফীজ জিয়াউদ্দীন, প্রচার সম্পাদক মাওলানা নাজমুল হাসান, সহকারী প্রচার সম্পাদক হাফিজ মাওলানা রশীদ আহমদ, আন্তর্জাতিক সম্পাদক হাফিজ মাওলানা ইলিয়াস, তাফসিরুল কোরআন বিষয়ক সম্পাদক হাফিজ মাওলানা মুশতাক আহমদ, যুব বিষয়ক সম্পাদক মুফতি সৈয়দ রিয়াজ আহমদ, মিডিয়া সেক্রেটারি মাওলানা খালেদ, প্রশিক্ষন সম্পাদক হাফিজ মাওলানা সৈয়দ হোসাইন আহমদ, অফিস সম্পাদক মাওলানা ফখরুদ্দিন বিশনাথী, ওয়েলফেয়ার সেক্রেটারি সৈয়দ আরজু মিয়া ও আব্দুর রহমান কোরেশী প্রমুখ।

সংক্ষিপ্ত জীবনী
জন্ম ১৯৪৫ ইংরেজী
যুক্তরাজ্যে ওলামাদের মধ্যে অন্যতম শীর্ষস্তানীয় আলেম মাওলানা তহুর উদ্দিন ১৯৪৫ সালে সিলেটের বিশ্বনাথ উপজেলাধীন দশঘর ইউনিয়নের অন্তর্গত বরুনী গ্রামে জন্ম গ্রহন করেন ।
তাঁর পিতা মরহুম আলহাজ্ব আসদ্দর আলী।
মাওলানা তহুর উদ্দিন ১৯৬৭ সালে ঢাকার লালবাগ জামেয়া কোরআনিয়া মাদ্রাসা থেকে দাওরায়ে হাদীস তথা টাইটেল সম্পন্ন করেন ।
তাঁর ওস্তাদদের মধ্যে আছেন মাওলানা মোহাম্মদ উল্লাহ হাফেজ্জী হুজুর (রহঃ)।
শিক্ষাজীবন শেষে মাওলানা তহুর উদ্দিন ইলমে দ্বীন বিস্তারে আত্বনিয়োগ করেন ।তিনি বালাগন্জের মাজাহিরুল উলুম বুরুঙ্গা হাজীপুর মাদ্রাসায় এবং শেরপুর আনওয়ারুল মাদ্রাসায় শিক্ষকতা করেছেন ।১৯৭৭ সালে তিনি যুক্তরাজ্যে গমন করেন ।১৯৭৭ সাল থেকে ১৯৮৩ সাল পর্যন্ত তিনি ব্রিকলেন জামে মসজিদের ইমাম ও খতিব ছিলেন ।১৯৮৩ সালে পুর্ব লন্ডনে এশায়াতুল ইসলাম মসজিদ ও মাদ্রাসা প্রতিষ্ঠা করেন ।মাওলানা তহুর উদ্দিন এশায়াতুল ইসলামের চেয়ারম্যান ছাড়াও ১৯৮৩ সাল থেকে মাদ্রাসার প্রিন্সিপাল পদে অধিষ্ঠিত ছিলেন ।
এশায়াতুল ইসলামের মাদ্রাসার অফিসিয়াল নাম লন্ডন ইসলামিক স্কুল ।লন্ডনের ফোর্ডস্কয়ার এশায়াতুল ইসলাম মসজিদ ও মাদ্রাসার প্রতিষ্ঠাতা মাওলানা তহুর উদ্দিন লন্ডনে দ্বীন ইসলামের মুবাল্লিগ হিসেবে নিরলসভাবে কাজ করে গেছেন ।
১৯৭০ সালে অখণ্ড পাকিস্তানে অনুষ্ঠিত সাধারণ নির্বাচনে তিনি জমিয়তে উলামায়ে ইসলামের প্রার্থী মাওলানা নুর উদ্দিন গহরপুরী (রহঃ)-এর পক্ষে নির্বাচনী প্রচারণায় সক্রিয়ভাবে অংশ নেন।সে সময় মাওলানা তহুর উদ্দিন দশঘর ইউনিয়ন জমিয়তে উলামায়ে ইসলামের দায়িত্বশীল ছিলেন । তিনি জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম ইউকের উপদেষ্টা হিসেবে সে পদে আমৃত্যু অধিষ্ঠিত ছিলেন।ইউকে জমিয়তের সর্বশেষ কাউন্সিল অধিভিষনে এবং লন্ডনে ইউকে জমিয়ত আয়োজিত শাযখুল ইসলাম কনফারেন্স , শায়খুল হীন্দ কনফারেন্স ও শতবার্ষিকী সম্মেলনে উপস্তিত থেকে গুরত্বপূর্ণ বক্তব্যে প্রদান করেন ।
মাওলানা তহুর উদ্দিন ১৯৭৪ বাংলা সনে সিলেটের মাওলানা আব্দুল গণী মীররচরীর মেয়ে হামিদা বেগমের সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন। তিনি পাঁচ পুত্র ও দুই কন্যা রেখে গেছেন।

এই সংবাদটি 76 বার পঠিত হয়েছে

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com