সুনামগঞ্জসহ হাওর জনপদকে ‘দূর্গত এলাকা’ ঘোষণার করুন: মাদানী কাফেলা

প্রকাশিত: ৭:১৪ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ৫, ২০১৭

সুনামগঞ্জসহ হাওর জনপদকে ‘দূর্গত এলাকা’ ঘোষণার করুন: মাদানী কাফেলা

সিলেট রিপোর্ট:  সুনামগঞ্জ,নেক্রকোণা,কিশোরগঞ্জসহ বৃহত্তর হাওরপাড়ের কৃষকদের একমাত্র অবলম্বন ইরি-বোরো ফসল পানিতে তলিযে যাওয়ায় এসব এলাকাকে দূর্গত এলাকা ঘোষণার দাবী জানিয়েছেন মাদানী কাফেলা বাংলাদেশের নেতৃবৃন্দ। গতকাল এক বিবৃতিতে কাফেলার উপদেষ্ট অধ্যক্ষ আব্দুর রহমান সিদ্দিকী,দক্ষিণ সুনামগজ্ঞ উপজেলা ভা্ইস চেয়ারম্যান তৈয়্যিবুর রহমান চৌধুরি, সভাপতি মাওলানা রুহুল আমীন নগরী,সহসভাপতি হাফিজ শিব্বির আহমদ রাজি, সেক্রেটারী সালেহ আহমদ শাহবাগী এই আহবান জানান।
বিবৃতিতে তারা বলেন, কত কয়েক দিনে হাওরাঞ্চলের অন্তত ২৫ হাজার হেক্টর জমির বোরো জমির ধান তলিয়ে গেছে। উজান থেকে নেমে আসা ঢলের পানির তোড়ে ভেঙে গেছে অনেক বাঁধ। প্রতিদিনই বাড়ছে পানি। আধা পাকা ধান কাটতে বাধ্য হচ্ছে কৃষক। প্রতিটি কৃষক পরিবারে এখন শুধুই হাহাকার। কেবল বাঁধ ভেঙে নয়, হাওরের ভেতর দিয়ে প্রবহমান নদীগুলোর পাড় উপছে পানি বোরো জমিতে গিয়ে পড়ছে। আর সাথে সাথেই তলিয়ে যাচ্ছে কৃষকের স্বপ্নের ফসল। পুরো হাওর এলাকার একই চিত্র। অনেক কৃষক জমিতে এসে কান্নায় ভেঙে পড়ছেন। সুনামগঞ্জ জেলা কৃষি সম্প্রসারণ বিভাগের এক তথ্যমতে, ২ লাখ ২৩ হাজার ৮২ হেক্টর বোরো জমির ৮০ হাজার হেক্টর ডুবেছে । সুত্রমতে জেলার ৪ ভাগের তিন ভাগ ফসল ডুবেছে এবং যেটুকু রয়েছে, সেটিও ঝুঁকির মধ্যে আছে।

চলতি বছর সুনামগঞ্জে বোরো ফসলের আবাদ করা হয়েছে ২ লাখ ২০ হাজার ৮৫০ হেক্টর জমিতে। ৪২টি হাওরের ফসল রক্ষায় বেড়িবাঁধ নির্মাণ ও মেরামতে জন্য ৫৮ কোটি টাকা ৭০ লাখ টাকা বরাদ্দ দেয়া হয়েছে। জেলা পানি উন্নয়ন বোর্ড সুনামগঞ্জের বৃহৎ ৩৭টি হাওরসহ মোট ৪২টি হাওরে ১০ কোটি ৭৭ লাখ ব্যয়ে ২২৫টি পিআইসি (প্রকল্প বাস্তবায়ন কমিটি) ও ৪৮ কোটি টাকা ব্যয়ে ৭৬টি প্যাকেজে ঠিকাদার দিয়ে বোরো ফসল রক্ষা বাঁধ নির্মাণ ও মেরামতের নামে চলতি বোরো মৌসুমে হরিলুট চালিয়েছে। পিআইসির প্রকল্প বাস্তবায়ন ২৮ ফেব্রুয়ারী ও ঠিকাদারের প্রকল্প বাস্তবায়ন ৩১ মার্চের মধ্যে শেষ হওয়ার কথা থাকলেও পিআইসির ও ঠিকাদারের কাজ সময়মত শেষ হয়নি পলে গত কয়েকদিনে শতাধিক হাওরের বোরো ফসল বৃষ্টির পানিতে ও ওপারের ঢলে তলিয়ে গিয়ে কয়েক’শ কোটির টাকার অধিক ফসলহানি হয়েছে।’

ক্ষতিগ্রস্ত কৃষকদের সুদ মওকুফকরত: ক্ষতিপুরণ প্রদানের জন্য দাবী জানানো হয়। একই সাথে  এসব হাওরের ফসল ডুবির কারণে পানি উন্নয়ন বোর্ড ও অভিযুক্ত বাঁধনির্মাণকারী ঠিকাদারদের ব্যাপারে দৃষ্টান্ত মুলক শাস্তির দাবী জানান মাদানী কাফেলার নেতৃবৃন্দ।

এই সংবাদটি 106 বার পঠিত হয়েছে

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com