স্বাধীনতা বিরাধীদের বিএনপিই ক্ষমতায় বসায়: শিক্ষামন্ত্রী

প্রকাশিত: ১২:২২ পূর্বাহ্ণ, নভেম্বর ১১, ২০১৬

স্বাধীনতা বিরাধীদের বিএনপিই ক্ষমতায় বসায়: শিক্ষামন্ত্রী

সিলেট রিপোর্ট: শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ এমপি বলেছেন, ২০ তম জাতীয় সম্মেলন ছিল একটি ব্যাতিক্রমি সম্মেলন। এ উৎসবমূখর সম্মেলনে সারা দেশব্যাপী নেতাকর্মীদের মিলনমেলা ছিল। বঙ্গবন্ধুর তনয়া শেখ হাসিনা আমাকে আওয়ামীলীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য নির্বাচিত করায় আমি তাকে অভিনন্দন জানাই। আমি মন্ত্রী নয়, একজন কর্মী হিসেবে সকলের কাজ করে যাচ্ছি। আমি যখন এমসি কলেজে অধ্যয়নরত ছিলাম, তখন ১৯৬২ সালে আয়ুব খান বিরোধী আন্দোলনে অংশগ্রহণ করেছিলাম। মন্ত্রী আরো বলেন, জাতির শত্র“রা স্বাধীনতা সুফল না পেতে নানা ষড়যন্ত্র করেছে। ইচ্ছে করে এই জাতিকে কখনও দাবিয়ে রাখা যাবে না। বিএনপির সমালোচনা করে মন্ত্রী বলেন বিএনপি ক্ষমতায় আসার পর ১৯৭১ সালে যারা এই দেশকে স্বাধীন করতে বিরাধীতা করেছিল এই স্বাধীনতা বিরোধীদের এমপি, মন্ত্রী করে ক্ষমতায় বসায়। স্বধীনতা বিরোধী কারীদের সাথে বিএনপি জোট বাধেঁ। দিনবদলের কর্মসূচী ও মুক্তিযোদ্ধের চেতনা নিয়ে ২০০৮ সালের নির্বাচনে আওয়ামীলীগ সরকার গঠন করে দারিদ্রমুক্ত, ক্ষুধামুক্ত, খাদ্যে স্বয়ংসম্পূর্ণতা করার লাক্ষ্যে সরকার নিরলস ভাবে কাজ করে যাচ্ছে। অতীতে ২১ বছর আওয়ামীলীগকে শোষনের মধ্যে আটকে রাখা হয়েছিল। চিরকাল মানুষকে  আটরে রাখা যায় না। ২০২১ সালের মধ্যে  অর্থনৈতিক মুক্তিসহ নতুন প্রজন্মকে আধুনিক বাংলাদেশের নির্মাতা হিসেবে গড়ে তুলতে হবে। যাতে বিশ্বের প্রতিটি কাজে চ্যালেঞ্জের সাথে ছেলে মেয়েরা সকল কাজে মোকাবিলা করতে পারে। ছেলেমেয়েকে উন্নতমানের জ্ঞানের অধিকারী করলে চলবে না। তাদেরকে সততা, নৈতিকতা, নেতিক মুল্যবোধসহ দেশ প্রেমে উদ্বুদ্ধ করতে হবে। মন্ত্রী নারী শিক্ষার কথা উল্লেখ করে বলেন, শিক্ষাক্ষেত্রে বাংলাদেশ এখন সারা বিশ্বের কাছে একটি রোড মডেল। নারী শিক্ষার ক্ষেত্রে সিলেট অঞ্চল পিঁিছয়ে ছিল। এখন মেয়েরা র‌্যাব, পুলিশ, পাইলট, ম্যাজিষ্ট্রেট হচ্ছে। এছাড়া মেয়েরা হিমালয়ের মত পাহাড় জয়লাভ  করছে। কম্পিউটার প্রশিক্ষণের মাধ্যমে শিক্ষক ও শিক্ষার্থীকে দক্ষ করে গড়ে তোলা হচ্ছে। স্কুল কলেজ মসজিদ মাদ্রাসার উন্নয়নে সরকার নিরলস ভাবে কাজ করছে। আমরা বিভিন্ন মাদ্রাসায় ১০৩২ টি নতুন ভবন তৈরী করে দিয়েছি। বেকারত্ব দুরিকরণের জন্য গোলাপগঞ্জ ও বিয়ানীবাজারে পৃথক দুটি টেকনিক্যাল কলেজ স্থাপন করা হবে।  অন্ধকার দূরিকরণের জন্য ২০১৭সালের জুনের মধ্যে ঘরে ঘরে বিদ্যুৎ পৌছে দেওয়া হবে। তিনি আরো বলেন, আমরা কৃষি ক্ষেত্রে যুগান্তকারী উন্নয়ন করেছি। আগে আমরা রিলিফ খেয়ে ভিক্ষা করে বাচতে হত। এখন আমরা খাদ্যে স্বয়ংসম্পূর্ণতা অর্জন করেছি। আমরা ৩৭ হাজার কৃষককে কার্ড দিয়েছি। আমরা ৫০ হাজার মেট্রিকটন খাদ্য বিদেশে বিক্রি করেছি। একমাত্র মিঠা পানির মাছ উৎপাদনে বিশ্বের মধ্যে আমরা চতুর্থ স্থানে আছি।

তিনি বলেন, গোলাপগঞ্জ পৌরসভাকে একটি আধুনিক পৌরশহর হিসেবে গড়ে তোলা হবে।

বৃহস্পতিবার সকাল ১০টায় উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট ইকবাল আহমদ চৌধুরীর সভাপতিত্বে শিক্ষামন্ত্রী কেন্দ্রীয় আওয়ামীলীগের প্রসিডিয়াম সদস্য নির্বাচিত হওয়ায় গোলাপগঞ্জ আওয়ামীলীগ ও অঙ্গসংগঠনের উদ্যোগে আয়োজিত সংবর্ধনা অনুষ্ঠানের শুরুতে মন্ত্রী প্রথমে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে, জাতীয় চার নেতাকে, তিনি আরও শ্রদ্ধা নিবেদন করেন বঙ্গবন্ধুর স্বপরিবারকে, স্বাধীনতা যুদ্ধের ত্রিশ লক্ষ শহীদকে ও দলের জন্য যারা জীবন দিয়েছে।

গোলাপগঞ্জ পৌর সদরের বাস স্ট্যান্ডে আয়োজিত সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক রফিক আহমদের পরিচালনায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন কেন্দ্রীয় আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট মিছবা উদ্দিন সিরাজ, জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট লুৎফুর রহমান।

বক্তব্য দেন জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক শফিকুর রহমান চৌধুরী, যুগ্ম সম্পাদক নাছির উদ্দিন খান, গোলাপগঞ্জ পৌর মেয়র সিরাজুল জব্বার চৌধুরী, জেলা আওয়ামীলীগের  সদস্য সৈয়দ মিছবা উদ্দিন, উপজেলা আওামীলীগের যুগ্ম সম্পাদক ও সাবেক চেয়ারম্যান লুৎফর রহমান, উপজেলা স্বেচ্চাসেবকলীগ সভাপতি ও পৌর কাউন্সিলর রুহিন আহমদ খান। এসময় উপস্থিত ছিলেন  উপজেলা যুবলীগের আহবায়ক ওয়েছুর রহমান, যুগ্ম আহবায়ক মাছুম আহমদ, লক্ষীপাশা ইউপি চেয়ারম্যান কবির আহমদ মোসন, বুধবারী বাজার ইউপি চেয়ারম্যান মস্তাব উদ্দিন কামাল, বাদেপাশা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোস্তাক আহমদ, শরীফগঞ্জ ইউনিয়নের চেয়ারম্যান এমএ মুহিত হীরা,  সাবেক মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান নাজিরা বেগম শিলা, সাবেক চেয়ারম্যান এমএ ছালিক, সিলেট কৃষি বিশ্ব বিদ্যালয়ের রেজিস্টার বদরুল ইসলাম শোয়েব, উপজেলা আওয়ামীলীগের দপ্তর সম্পাদক আলী আকবর ফখর, অন্যানের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ঢাকাদক্ষিণ ইউপি আওয়ামীলীগের সভাপতি আবুল বশর মোহাম্মদ ছদর উলা চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক সাহাব উদ্দিন আহমদ,  গোলাপগঞ্জ পল্লিবিদ্যুৎ ডিজিএম সুজিত সরকার, ঢাকাদক্ষিন ডিগ্রি কলেজ অধ্যক্ষ অনুরঞ্জন দাস, গোলাপগঞ্জ প্রেসক্লাব সভাপতি শহিদুর রহমান সুহেদ, গোলাপগঞ্জ প্রেসক্লাব সাবেক সভাপতি অজামিল চন্দ্র নাথ, গোলাপগঞ্জ প্রেসক্লাব  সিনিয়র সহ-সভাপতি এনামুল হক এনাম, সাধারণ সম্পাদক ইউনুস চৌধুরী, কোষাধ্যক্ষ রতন মনি চন্দ, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক জালাল আহমদ চৌধুরী, নির্বাহী সদস্য জাহেদুর রহমান জাহেদ, যুগান্তর গোলাপগঞ্জ প্রতিনিধি হারিছ আলী, দৈনিক কাজির বাজার প্রতিনিধি সেলিম হাসান কাওসার, এনামুল হক রুহেল, জেলা ছাত্রলীগ নেতা জাফরান জামিল, সাবেক ছাত্রলীগ বিভাগীয় উপ সম্পাদক রুমেল সিরাজ, ছাত্রলীগ নেতা মনসুর আহমদ, আওয়ামীলীগ নেতা এম.এ ওয়াদুদ, আমুড়া ইউপি আওয়ামীলীগের সভাপতি মঈন মিয়া, ফয়সল আহমদ,  সদর ইউপি আওয়ামীলীগ সভাপতি আব্দুস সামাদ জিলু, ভাদেশ্ব ইউপি আওয়ামীলীগ সভাপতি মাষ্টার লুৎফুর রহমান, উপজেলা আওয়ামীলীগ সাংস্কৃতিক সম্পাদক মিজানুর রহমান রিংকু, জহির উদ্দিন, সেলিম আহমদ, উপজেলা ছাত্রলীগ সাবেক সভাপতি খায়রুল হক, আমুড়া ইউপি যুগ্ম আহবায়ক নাজিমুল হক লস্কর, ছাত্রলীগ নেতা নাদিম মাহমুদ শিপলু, মাজেদ শরীফ চৌধুরী, যুবলীগ নেতা ফখরুল ইসলাম, পৌর ছাত্রলীগ সভাপতি কামরান আহমদ, সহসভাপতি সুমন আহমদ, সাধারণ সম্পাদক দেলওয়ার হোসেন দীপন, সাবেক কাউন্সিলর ফরিদ উদ্দিন ইরান, ছাত্রলীগ নেতা আজমল হোসেন, দিদারুল আলম দিদার প্রমুখ। অনুষ্ঠানের শুরুতে পবিত্র কোরআন থেকে তেলাওয়াত করেন মওলানা আব্দুল মালেক।

এই সংবাদটি 213 বার পঠিত হয়েছে

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

[latest_post][single_page_category_post]

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com