সোমবার, ০৪ নভে ২০১৯ ০৩:১১ ঘণ্টা

সিলেটে পুলিশ-জনতার মিলনমেলা

Share Button

সিলেটে পুলিশ-জনতার মিলনমেলা

সিলেট রিপোর্ট :
‘পুলিশই জনতা, জনতাই পুলিশ’ স্লোগানে সিলেটে পালিত হচ্ছে কমিউনিটি পুলিশিং ডে। তবে, এটি কোনো রাজনৈতিক মিছিল ছিল না। পুলিশ-জনতা হাতে হাত ধরে অপরাধ দমনের পালন করেন পুলিশিং ডে।

সোমবার দিনের শুরুতে মিছিলের নগর হয়ে ওঠে সিলেট। সকাল সাড়ে ১০টায় নগরের চৌহাট্টা কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার থেকে র‌্যালি শুরু হয়ে রিকাবিবাজার কবি নজরুল অডিটোরিয়ামে গিয়ে আলোচনা সভায় মিলিত হয়।

এর আগে লোকে লোকরণ্য হয়ে ওঠে শহীদ মিনার প্রাঙ্গণ। সাদা পোশাক পুলিশ জনতার মিলন ঘটায় কমিউনিটি পুলিশিং ডে।

র‌্যালি ও পরবর্তী আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন পুলিশের সিআইডির অ্যাডিশনাল আইজি চৌধুরী আব্দুল্লাহ আল মামুন।

প্রধান অতিথি ও বিশেষ অতিথিরা বেলুন ও পায়রা উড়িয়ে কমিউনিটি পুলিশিং ডে’র সূচনা করেন।

সভায় বক্তারা বলেন, অপরাধ দমনে সিলেট মহানগরের ছয় থানা এলাকাকে ৬৭টি বিটে ভাগ করে কমিউনিটি পুলিশিং সেবা কার্যক্রম পরিচালিত হচ্ছে। এর মাধ্যমে জনগণের সঙ্গে সম্পৃক্ত থেকে জনবান্ধব হয়ে অপরাধ দমনে কাজ করছে পুলিশ।

সিলেট মহানগর পুলিশ কমিশনার কামরুল আহসানের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন সিলেট রেঞ্জের উপ মহা-পরিদর্শক (ডিআইজ) কামরুল আহসান, সিলেটের অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার তাহমিদুল ইসলাম, সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক মেয়র বদর উদ্দিন আহমদ কামরান, অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার সফিকুল ইসলাম, সিলেটের পুলিশ সুপার ফরিদ উদ্দিন, সিলেট সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আশফাক আহমদ, সিলেট জেলা প্রেসক্লাব সভাপতি তাপস দাশ পুরকায়স্থ, সিলেট চেম্বার অব কমার্সের সভাপতি এটিএম শোয়েব, সময় টিভির ব্যুরো প্রধান ইকরামুল কবীর, উইমেন্স চেম্বার সভাপতি স্বর্ণলতা রায় প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন সিলেট মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার পরিতোষ ঘোষ।

৫১৮ দশমিক ৪৩ বর্গ কিলোমিটার এলাকাজুড়ে বিস্তৃত সিলেট মহানগর পুলিশের কর্ম এলাকা। ছয় থানায় ভাগ করে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষায় দায়িত্ব পালন করছে পুলিশ। পাশাপাশি এসব এলাকাকে ৬৭টি বিটে ভাগ করে কমিউনিটি পুলিশিং কর্যক্রম পরিচালিত হয়ে আসছে।

এই সংবাদটি 1,004 বার পড়া হয়েছে

WP2FB Auto Publish Powered By : XYZScripts.com