আকাবেরঃ সেকাল একাল

প্রকাশিত: ৩:৪৯ অপরাহ্ণ, আগস্ট ১০, ২০২০

আকাবেরঃ সেকাল একাল

মাওলানা শাহ মমশাদ আহমদঃ

সাবেক এম পি হযরত মাওলানা ওবায়দুল হক (রহঃ) বলতেন,মুলতঃ আমরা আলেমরা ইসলামের খেদমত করছিনা,ইসলাম আমাদের খেদমত করছে।

#আমাদের আকাবেররা কওমী মাদরাসার আজীবন খেদমত করেছেন,বর্তমান কিছু আকাবেরদের কওমী মাদরাসাই খেদমত করছে।

#খেদমত নিতে কার না ভালো লাগে? তাই কওমী অঙ্গন যতই রসাতলে যাক দায়িত্ব ছাড়তে অনীহা,মুল আকাবেরদের ছিল দায়িত্ব নিতে অনীহা।

#আকাবের মানেই বড়, আকাবেররা ছিলেন তাক্বওয়া,আমানাতদারী,ইখলাস আর মনের দিক দিয়ে বড়। বর্তমান আকাবেররা নিজের প্রভাব প্রতিষ্ঠার কৌশলে বড়,মনে ছোট।

#মুল আকাবেররা নিজ সন্তানদের প্রভাব থেকে মুক্ত থাকতেন, বড় কাজে বড়দের পরামর্শ নিতেন,বর্তমান আকাবেররা যত বড় কাজ হোক বড়দের এড়িয়ে নিজ সন্তানের পরামর্শ নেন,তার কথায় সিদ্ধান্ত দেন,জনতার কাছে “ছোট” এর মর্যাদা দিতে নিজে ছোট হয়ে যান।

#আকাবের শব্দের মুল অর্থে কিবির থাকলে ও মুল আকাবেরগন سلب ماخذ হিসেবে কিবিরমুক্ত ছিলেন , বিনয়ীতা ছিল তাদের স্বভাবের অংশ,বর্তমান কিছু আকাবেরের অহংকার স্বভাবের অংশ।

#আকাবেরদের বাড়ীর দরজা বড় ছিল, ছাত্র-জনতা অনায়াসে যেতে পারত,সুখ -দুঃখ বলার সুযোগ পেত, বর্তমান আকাবেরদের বাসার গেইট মুল্যে বড় কিন্তু প্রবেশাধিকার সংরক্ষিত।

আমাদের আকাবেরদের প্রকৃত অনুসরণ করে যারা আকাবের হবেন এখনো তাদের স্থান মানুষের হৃদয়ের গহীনে,বড়রা অনন্য গুনে থাকলে ছোটরা এখনো ছুটবে তাদের সান্নিধ্যে, কিছু আকাবের নামের লোভীদের কারনে জাতীর আশা আকাংখার প্রতিক কওমী অঙ্গন কলুষিত হোক তা মেনে নেয়া যায়না।

মুহাদ্দিসঃ জামিয়া মাদানিয়া কাজিরবাজা, সিলেট।

এই সংবাদটি 202 বার পঠিত হয়েছে

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com