শনিবার, ১৬ সেপ্টে ২০১৭ ১২:০৯ ঘণ্টা

সিলেটে শারদীয় দুর্গোৎসব প্রস্তুতি

Share Button

সিলেটে শারদীয় দুর্গোৎসব প্রস্তুতি

সিলেট রিপোর্ট: সনাতন হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের সবচেয়ে বড় উৎসব শারদীয় দূর্গা পূজা। দেবী দূর্গা, দুর্গতি নাশিনী। অশুভ শক্তির বিনাশ করতেই তিনি আসেন ধরণীতে। তার আগমনের অপেক্ষায় হিন্দু সম্প্রদায়।

আর কয়েকদিন পরই শারদীয় দুর্গোৎসবে ঢাকের বাজনা, উলুধ্বনি ও আরতিতে মুখরিত হবে সিলেটের নগরীর পাড়া-মহল্লা। এ বছর দেবী দূর্গা নৌকায় চড়ে পৃথিবীতে আসবেন। যাবেন ঘোড়ায় চড়ে। আগামী ২৬ সেপ্টেম্বর মহাষষ্ঠিতে দেবী বোধনের মধ্য দিয়ে শুরু হবে পূজার আনুষ্ঠানিকতা।

সিলেট নগরীতে চলছে মন্দিরে মন্দিরে পূজার প্রস্তুতি। পূজা মন্দির ও মন্ডপগুলোও সাজানো হচ্ছে নানা রঙে। প্রতিমা তৈরিতে ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছেন মৃৎশিল্পীরা। কারিগররা তুলির শেষ আঁচড়ে ফুটিয়ে তুলছেন মা দূর্গাকে। মৃৎশিল্পীরা তাদের সর্বমেধা দিয়ে দিনরাত কাজ করে যাচ্ছেন।

পুরাণ মতে-রাজা সুরথ প্রথম দেবী দূর্গার আরাধনা শুরু করেন। বসন্তে তিনি এ পূজার আয়োজন করায় দেবীর এ পূজাকে বাসন্তী পূজাও বলা হতো।

কিন্তু রাবণের হাত থেকে সীতাকে উদ্ধার করতে যাওয়ার আগে শ্রী রাম চন্দ্র দূর্গা পূজার আয়োজন করেছিলেন। তাই শরৎকালের এ পূজাকে হিন্দু মতে অকালবোধনও বলা হয়।  এই অকালবোধনে শারদীয় দূর্গোৎসবকে ঘিরে নানা আয়োজনে ব্যস্ত হিন্দু সম্প্রদায়ের মানুষ।

আগামী ২৬ সেপ্টেম্বর মঙ্গলবার বোধনের মধ্য দিয়ে এ পূজা শুরু হবে ৩০ সেপ্টেম্বর শনিবার বিজয়া দশমীর মধ্য দিয়ে শেষ হবে।

এই সংবাদটি 1,026 বার পড়া হয়েছে